মোঃ নুরনবী ইসলাম, নিজস্ব প্রতিবেদক

দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার বাসিন্দা বেরোবি ছাত্র অঙ্কার অধিকারীর চিকিৎসার দায়িত্ব নেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি ও সাবেক ডাকসু সদস্য রকিবুল ইসলাম ঐতিহ্য। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে “অর্থের অভাবে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র অঙ্কার অধিকারীর চিকিৎসা হচ্ছে না’ এমন সংবাদ নজরে আসার পর তার চিকিৎসার সকল দায়িত্ব গ্রহণ করেন ঐতিহ্য। তিনি অঙ্কারের দ্রুত উন্নত চিকিৎসার জন্য শেখ হাসিনা বার্ণ হাসপাতালে ভর্তির ব্যবস্থা করছেন।

জানা যায়, বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের ২০১৯-২০ শেসনের শিক্ষার্থী অঙ্কার অধিকারী। তাঁর গ্রামের বাড়ি উপজেলার টংগুয়া গ্রামে। সে গত ৮ মে বিদ্যুৎস্পৃশ্য হয়ে হাত পুড়ে ফেলেছে। যার কারণে তার হাতে সার্জারি করা হয়েছে এবং এখন পর্যন্ত একটি আঙুল কেটে ফেলা হয়েছে। চিকিৎসকের পরামর্শ মতে তার দ্বিতীয় বার সার্জারি করা অতি জরুরী, না হলে তাঁকে চিরতরে তার হাত হারাতে হতে পারে। কিন্তু আর্থিক ভাবে স্বচ্ছল না হওয়ায় তার পরিবারের একার পক্ষে এই দ্বিতীয় সার্জারির ব্যয় বহন করা মোটেও সম্ভব হচ্ছে না।

মঙ্গলবার রাতে ফেসবুকে সাহায্যের বিষয়টি প্রকাশের পর বিভিন্ন জায়গা থেকে লোকজন বিকাশ ও নগদের মাধ্যমে সহায়তা প্রদান করছেন।

কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ঐতিহ্য জানান, অসুস্থ অঙ্কার অধিকারী একজন বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শিক্ষার্থী। শুধু মাত্র অর্থের অভাবে তার চিকিৎসা হবে না, এটা কোনভাবেই মেনে নেয়া যায় না। শেখ হাসিনা বার্ণ ইন্সটিটিউটের পরিচালক মহোদয়ের সাথে কথা হয়েছে তিনি অঙ্কারের চিকিৎসার ব্যবস্থা করবেন। এছাড়াও যদি অর্থের দরকার হয় ছাত্রলীগের সাবেক বড় ভাইয়েরা তা ব্যয় বহন করবেন। আমাদের অঙ্কারের সবচেয়ে উন্নত চিকিৎসা নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর।

তিনি আরো বলেন, বর্তমান ছাত্রলীগ মানবতার জন্য কাজ করছে। একাজের উৎসাহ প্রদান করছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা। ছাত্রলীগ সব সময় অসহায় মানুষের পাশে থাকে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে।