জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) উপাচার্যকে দুর্নীতির অভিযাগে অপসারণের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও সংস্কৃতি কর্মীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যায়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

আজ বুধবার (৬ নভেম্বর) দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গন্থাগারের সামনে সাধারণ শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে  মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। পরে কেন্দ্রীয় গ্রন্থারের সামনে থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি ক্যাম্পাসের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থান প্রদক্ষিণ করে একই স্থানে এসে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে মিলিত হয়।

সমাবেশে লোক প্রশাসন বিভাগের শিক্ষার্থী মোসাদ্দেক মীমের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন নৃবিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মদ জাবেদ কায়সার ইবনে রহমান, রসায়ন বিভাগের শিক্ষার্থী তৌহিদুজ্জামান জুয়েল, পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী শাহনীল জুলকারনাইন, তানভীর আকন্দ, সুদীপ্ত ভাস্কর, সিএসই বিভাগের শিক্ষার্থী ফয়সাল আহমেদ শুভ, জিইবি বিভাগের শিক্ষার্থী নিশাত জাহান নিশা ও গণিত বিভাগের শিক্ষার্থী ওমর ফারুক।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ধারাবাহিকভাবে চলে আসা শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক দাবির আন্দোলনকে নস্যাৎ করে দেওয়ার জন্য পুলিশ ও ছাত্রলীগের পেটুয়া বাহিনী দ্বারা আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো একটি স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের উপর হামলা ছাত্র সমাজ কখনো মেনে নেবে না। আমরা হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি। সমাবেশে শিক্ষার্থীরা উপাচার্য ফারজানা ইসলামকে পদত্যাগ করার আহ্বান জানান।

প্রসঙ্গত, দুর্নীতির অভিযোগে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের অপসারণ দাবিতে অনেকদিন থেকে আন্দোলন চালিয়ে আসছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও সংস্কৃতি কর্মীরা। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে উপাচার্যের বাসভবনের সামনে আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও সংস্কৃতিকর্মীদের ওপর জাবি শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা হামলা চালায়। হামলায় শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও সাংবাদিকসহ অন্তত ২৫ জনের মতো আহত হয়েছে।