বানিজ্যিক বিজ্ঞাপন

এস.এম.রকি, নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বাংলাদেশ ছাত্রলীগ খানসামা উপজেলা শাখার আওতাধীন ভেড়ভেড়ী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের পুনর্গঠিত কমিটিকে বির্তকিত করার চেষ্টা করছে একটি মহল।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে খানসামা উপজেলা ছাত্রলীগের বর্ধিত সভা শেষে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সফিউল আযম চৌধুরী লায়নের উপস্থিতিতে এবং উপজেলা ছাত্রলীগের সদস্য রানা ও রাকেশ গুহ’য়ের সুপারিশক্রমে পুনর্গঠিত কমিটি ঘোষনা করে উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক রেজাউল করিম।

এরপর থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পুনর্গঠিত কমিটির সভাপতি মোস্তাওফিক আহম্মেদ শামীম আর সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ ইসলামকে শুভেচ্ছা জানিয়ে ফেসবুকে ঝড় উঠেছে অন্যদিকে তাঁদের কমিটি ঘোষনা হওয়ার পর থেকেই বিষয়টি অনেকেই দেখছেন বাঁকা চোখে নিন্দুকরা ইতিমধ্যেই বিগত কমিটিতে শামীমের দায়িত্ব ও সাজ্জাদের পরিবার নিয়ে জল ঘোলা করতেও নেনে পড়েছে।

এবিষয়ে খোঁজ নিয়ে দেখা যায়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচার হওয়া পুনর্গঠিত কমিটির সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ ইসলাম বিএনপি নেতার ছেলে এই তথ্যটি আদৌ সত্য নয় কেননা তাঁর পিতা আনিছুর রহমান রাজনীতিতে সক্রিয় নয় তিনি ব্যবসায় বেশী সময় দেয় আর সাজ্জাদ দীর্ঘদিন থেকেই ছাত্রলীগের রাজনীতিতে সক্রিয় রয়েছে ।

সাজ্জাদ ইসলামের সাথে কথা হলে সে বলে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে স্কুল জীবন থেকেই ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীর সাথে সম্পৃক্ত থেকে ছাত্রলীগের রাজনীতিতে ঢুকে পড়ি আর আমার বাবা কখনো কোন রাজনৈতিক  দলের পদেই ছিল না।

পুনর্গঠিত ইউনিয়ন কমিটির সভাপতি শামীম জানান, যারা পদ পেয়েছে সকলে মুজিব আদর্শে বিশ্বাসী এবং নৌকার পক্ষের তাই পুনর্গঠিত কমিটি বিষয়ে মিথ্যা তথ্য পরিবেশন করে কাউকে বিভ্রান্ত না করতে অনুরোধ রইল।

উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক রেজাউল করিম বলেন, নিয়ম-নীতি মেনেই ভেড়ভেড়ী ইউনিয়নের কমিটি পুনর্গঠন করা হয়েছে আর কমিটিতে বিগত দিনের ত্যাগী ও পরিশ্রমীদের স্থান হয়েছে যাদের সবাই আওয়ামী মনা তাই অপপ্রচারে কান না দিতে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান রইল।