অনলাইন সংস্করণ:

জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষা আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে শুরু হচ্ছে।

গত বছর জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ২৪ লাখ ৬৮ হাজার ৮২০ জন। এবার দুই লাখ এক হাজার ৫১৩ পরীক্ষার্থী বেড়েছে। শ্রবণপ্রতিবন্ধীসহ অন্যান্য প্রতিবন্ধী পরীক্ষার্থীর জন্য নির্ধারিত সময়ের অতিরিক্ত ২০ মিনিট সময় দেয়া হয়েছে। দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী, সেরিব্রাল পলসিজনিত প্রতিবন্ধী এবং যাদের হাত নেই, তাদের জন্য শ্রুতি লেখকের সুযোগ রাখা হয়েছে।

সারা দেশে দুই হাজার ৯০৩ কেন্দ্রে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। গত বছর কেন্দ্রের সংখ্যা ছিল দুই হাজার ৮৩৪টি। সেই হিসাবে এবার ৬৯ কেন্দ্র বৃদ্ধি পেয়েছে। এ ছাড়া এবার দেশের বাইরে ৯ কেন্দ্রে ৫৭৮ পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেবে। এদিকে প্রতিবারের মতো এবারও পরীক্ষার আগে প্রশ্নপত্র ফাঁসের প্রলোভন দেখিয়ে অনলাইনে সক্রিয় হয়েছে একাধিক চক্র। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক ও হোয়াটসঅ্যাপে এসব গ্রুপ থেকে অল্প টাকায় জেএসসি ও জেডিসির প্রশ্ন দেয়ার কথা বলে প্রলুব্ধের চেষ্টা করা হচ্ছে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের। যদিও শিক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে- প্রশ্নপত্র ফাঁসের কোনো সুযোগ নেই।