মোঃ নুরনবী ইসলাম, নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রত্যন্ত এলাকা গুলোতে পাকা রাস্তার পাশাপাশি বিদ্যুৎ, ব্রীজ ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সমূহের ভবন নির্মাণসহ প্রভৃতি উন্নয়নের মাধ্যমে গ্রাম শহরে পরিণত হবে। সেই সাথে দেশের সুষম উন্নয়ন নিশ্চিত হবে এবং গ্রামীণ উন্নয়ন দেশের সামগ্রিক উন্নয়নকে ত্বরাণিত করবে। গ্রামীণ উন্নয়ন নগরের উপর চাপ কমায় ও দেশের সুষম উন্নয়নে সহায়তা করে। বাংলাদেশের মানুষের মাথাপিছু আয় বেড়েছে উল্লেখ করে তিনি উন্নয়নের এ ধারা অব্যাহত রাখার ওপরও গুরুত্বারোপ করেন।

আজ রবিবার সকালে প্রায় সাড়ে ৪কোটি টাকা ব্যয়ে উপজেলার গোবিন্দপুর আরএইচডি রামকলা জিসি রাস্তায় ১২১৮ মিটার চেইনেজে ভুল্লি নদীর ওপর ৪০ মিটার পি.এস.সি গার্ডার ব্রীজ নির্মাণ কাজের ভিত্তি প্রস্থর অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালীভাবে সংযুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে অর্থ মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি আবুল হাসান মাহমুদ আলী এমপি এসব কথা বলেন।

এর আগে তিনি উপজেলার আঙ্গারপাড়া ইউনিয়নের উত্তর সূবর্ণখুলী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রায় ৬৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ৪তলা ভীত বিশিষ্ট দ্বিতল ভবন এবং ভেড়ভেড়ী ইউনিয়নের সরহদ্দ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রায় ৫৫ লাখ টাকা ব্যয়ে ৩ তলা ভীত বিশিষ্ট ১ তলা ভবনের নির্মাণ কাজের ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন করেন।

এসব অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আহমেদ মাহবুব-উল-ইসলাম, উপজেলা এলজিইডি প্রকৌশলী হারুন-অর-রশিদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) মোস্তফা আহমেদ শাহ্ ও সাধারন সম্পাদক সফিউল আযম চৌধুরী লায়ন, ভেড়ভেড়ী ইউপি চেয়ারম্যান হাফিজ সরকার, আলোকঝাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান আ স ম আতাউর রহমান, আঙ্গারপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ ও সাধারন সম্পাদক ধীমান দাস, আলোকঝাড়ি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আহবায়ক মোকছেদুল গণি রাব্বু শাহ্, উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ন আহবায়ক লিটন ইসলাম লিটু ও মোস্তাওফিক আহমেদ শামীম প্রমুখ।